চলে গেলেন ব্যারিস্টার রফিক-উল-হক (ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)। স্যার কে নিয়ে লিখে শেষ করতে পারবো না…, তখন আমার বয়স ১৭, ভবিষ্যতে কি করব তেমন কোনো পরিকল্পনা ছিল না, হঠাৎ ডেকে নিয়ে গেল স্যার.. বলল ল’ পড়, তুই পারবি, নিজে গ্যারান্টি হয়ে ভিসা করে দিল, কলেজে ভর্তি করে দিল, নিজের ভাইকে দায়িত্ব দিল লন্ডন নিয়ে যেতে সাথে করে।

সেই থেকে আমার শুরু, ফিরে এসে স্যার সাথেই কাজ শুরু…
স্যার না থাকলে আমি হয়তো আজ আমি হতাম না…
স্যার আমার অভিভাবক ছিল, আমার বাবার অভিভাবক ছিল….
জীবনের সকল উপার্জন নীরবে দান করে গিয়েছেন…. কখনো অন্যায়ের সাথে আপোষ করেনি, একজন বিপদের বন্ধু, জাতির অভিভাবক….
A True Legend… চিরকাল ঋণী থাকবো,
আল্লাহ জান্নাতুল ফেরদৌস দান করুক।

(লেখাটি লেখকের ফেসবুক ওয়াল থেকে নেয়া)