লিটন মিয়া লাকু, গাইবান্ধা ॥ গাইবান্ধায় করোনা ভাইরাসে নতুন করে আরও ৪ জন আক্রান্ত হয়েছে বুধবার বলে সিভিল সার্জন সুত্রে জানা গেছে। এদিকে মঙ্গলবার পর্যন্ত গাইবান্ধায় করোনা ভাইরাসের আক্রান্ত সংখ্যা ছিল ২১৬ জন। গত ২৪ ঘন্টায় আরও ৪ জন বেড়ে জেলায় এখন মোট সংক্রমণের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২২০ জন। এদিকে জেলার সাতটি উপজেলায় হোম কোয়ারেন্টাইনে রয়েছে ৪১৬ জন।

 

গাইবান্ধায় নদ-নদীর পানি বৃদ্ধি পাওয়ায়
প্লাবিত হচ্ছে চরা লের নিম্না ল

লিটন মিয়া লাকু, গাইবান্ধা ॥ অতি বর্ষণে ও উজানের ঢলে গাইবান্ধা জেলার মধ্য দিয়ে প্রবাহিত বিভিন্ন নদ-নদীর পানি বৃদ্ধি অব্যাহত রয়েছে। ফলে বিভিন্ন নদ-নদীর পানি এখন বিপদসীমার সামান্য নিচ দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। তিস্তা, যমুনা, ব্রহ্মপুত্র, করতোয়া ও ঘাঘট নদীর পানি ব্যাপকহারে বৃদ্ধি পেয়ে গাইবান্ধার চার উপজেলার দীর্ঘ চরা লের বিস্তীর্ণ এলাকার পাট, কাউন, চিনাসহ বিভিন্ন ফসল ক্ষেত ডুবে গেছে। পানিতে ডুবে যাওয়ায় চাষীরা অনেক জমির অপরিপক্ক পাট কেটে নিচ্ছে।
অপরদিকে চরা লের নিম্না লের রাস্তাঘাট ঘরবাড়িতেও পানি উঠতে শুরু করেছে। পানি উন্নয়ন বোর্ড সুত্রে জানা গেছে, জেলার মধ্য দিয়ে প্রবাহিত নদ-নদীগুলোর পানি এখনও বিপদ সীমার নিচে রয়েছে। তবে উজানে বৃষ্টিপাত হলে এবং পানিবৃদ্ধি অব্যাহত থাকলে ২৪ ঘন্টায় জেলার বিভিন্ন নদ-নদী বিপদসীমা অতিক্রম করতে পারে। এছাড়া সুন্দরগঞ্জের তারাপুর, বেলকা, হরিপুর, চন্ডিপুর, শ্রীপুর ও কাপাসিয়া ইউনিয়নের উপর দিয়ে প্রবাহিত তিস্তা নদীর বিভিন্ন চরে পানি উঠতে শুরু করেছে।